দীর্ঘ লড়াইয়ের অবসান!না ফেরার দেশে পারি ঐন্দ্রিলার,মারণ রোগ আর ফিরতে দিল না মেয়েটাকে…

শনিবার রাতে পরপর ১০ বার কার্ডিয়াক অ্যারেস্ট হয় ঐন্দ্রিলার!আশা প্রায় হারিয়ে ফেলেছিলেন চিকিৎসকরা,তবু সবারই কামনা ছিল কিছু একটা ‘মিরাকেল’ দেখিয়ে ঠিক ফিরে আসবে লড়াকু মেয়ে ঐন্দ্রলা|সেই ফেরা আর হল না তার….পারি দিয়ে দিলেন না ফেরার দেশে|

আরো পড়ুন-‘যেসব অস্ত্র ধরা পড়বে সেই অস্ত্রগুলো দিয়েই তৃণমূল কর্মীদের প্রশিক্ষণ হবে’:বিস্ফোরক মদন

গত ১ নভেম্বর ব্রেন স্ট্রোকে আক্রান্ত হয়েছিলেন ঐন্দ্রিলা|প্রথমদিকে চিকিৎসায় সাড়া দিচ্ছিলেন ঐন্দ্রিলা। এক্সটার্নাল স্টিমুলি ব্যবহার করে তাঁকে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা করা হচ্ছিল। চলছিল ফিজিওথেরাপি। কিন্তু, গত কয়েকদিন দিনে অভিনেত্রীর অবস্থা অত্যন্ত গুরুতর হয়ে উঠেছে। ১৬ নভেম্বর সকালে তাঁর কার্ডিয়াক অ্যারেস্ট হয়। হার্টরেট ড্রপ করে ৪০ এর নীচে নেমে ব্ল্যাঙ্ক হয়ে যায়। কয়েক মিনিটের মধ্যে বিভিন্ন সাপোর্টে ফের হার্টবিট ফিরে আসে। কোনওভাবে রিভাইভ করা গেলেও, অবস্থার অবনতি ঘটতে শুরু করে।বৃহস্পতিবার রাত আটটা নাগাদ আবারও নড়ে ওঠে ঐন্দ্রিলা শর্মার হাত।ক্ষনিক-এর কিছুটা আশা দেখা গেলেও শেষ রক্ষা আর হল না|শনিবারের বারংবার কার্ডিয়াক অ্যারেস্ট আর ফিরতে দিল না মেয়েটাকে….

আরো পড়ুন-পরপর ১০ বার কার্ডিয়াক অ্যারেস্ট হয় ঐন্দ্রিলার,দিশেহারা চিকিৎসকরা

উল্লেখ্য,২০১৭ সালে ঝুমুর ধারাবাহিকের মাধ্যমে কেরিয়ার শুরু করেছিলেন ঐন্দ্রিলা শর্মা। এরপর জীবন জ্যোতি এবং জিয়ন কাঠির মতো ধারাবাহিকে দেখা গিয়েছে তাঁকে। এছাড়াও ভাগাড়ের মতো ওয়েব সিরিজে কাজ করেছেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *